সাম্প্রতিক:

সুখমন্ত্রী দেখা যাবে আরব আমিরাতে

Hppiness ministries can be seen, আরব আমিরাতে সুখমন্ত্রী দেখা যাবেটাকা পয়সা দিয়ে সুখ কেনা যায় না, টাকা থাকলেও সুখ আসে না। এটি মনের অভ্যন্তরীণ বিষয়। সুখ প্রতিটা মানুষের মনের ভিতরে থাকে। দেখা যায় অধেল সম্পদশালী লোকও অসুখী, আবার দেখা যায় একজন দিন মজুর অল্প টাকায় অনেক সুখী।

মানুষের সুখ শান্তির জন্য পৃথিবীর কোন যায়গায় বা দেশে কোন মন্ত্রণালয় তো দুরের কথা এ কথা কেউ কোনোদিন কল্পনাও করেনি কখনো। আরব আমিরাত সরকার এবার সুখ এবং সহনশীলতা নামের দুটি মন্ত্রণালয় চালু করতে যাচ্ছেন। দেশটির প্রধানমন্ত্রী দেশের শাসনব্যবস্থা ও জাতীয় নীতি নিজের হাতে সাজানোর জন্য এই অকল্পনীয় পদক্ষেপটি নিতে যাচ্ছে।

মন্ত্রণালয় দুটি চালু করার জন্য দুজন মন্ত্রী খোঁজার কাজ ইতিমধ্যে শুরু হয়ে গেছে। দেশটির প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, এই দুটি মন্ত্রণালয় এমন সব নীতি বাস্তবায়ন করবে যেন দেশের সকল নাগরিক শান্তিতে থাকে এবং তাদের যেন কোন দুঃখ না থাকে।

সহনশীলতা মন্ত্রণালয়ের ব্যাপারে তিনি বলেন, মৌলিক মূল্যবোধ হিসেবে সহনশীলতাকে প্রতিষ্ঠা করাটাই হবে এই মন্ত্রণালয়ের মূল কাজ।

এছাড়াও অনেকগুলো সরকারি কাজ কর্ম বেসরকারি খাতগুলোর হাতে তুলে দেয়ার চিন্তা ভাবনা করতেছে।

দেশটির প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা নতুন একটি অধ্যায় শুরু করতে যাচ্ছি এতে নাগরিকের কৃতিত্ব ও অধিকার সুপ্রতিষ্ঠিত হয়। নাগরিককে রক্ষা ও তাদের দেখাশুনা করতে আমরা অবশ্যই আল্লাহর কাছে সাহায্য চাইব।

মন্ত্রীদের সংখ্যা নিয়ে দেশটির প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা সংখ্যায় বিশ্বাসী নই, এমন কিছু লোক দরকার যারা সমাজ ও দেশের উন্নয়নের কাজ করে যাবে। আমরা এমন লোককেই খুজতেছি যারা এতে সফলতা লাভ করবে। তাদের দায়িত্ব পালনে কোন প্রকার অবহেলা করবে না।

দেশটির সরকার তরুণ যুবকদের প্রতি বেশি নজর দিচ্ছেন। এর মধ্যে ২২ বছরের কম বয়সের একজন নারীকে মন্ত্রিত্ব ও দিয়েছেন। তিনি সেই মন্ত্রীকে দিয়ে একটি কাউন্সিল গঠন করেছেন যা কিনা সরকারকে বিভিন্ন বিষয়ে সরকারকে পরামর্শ দেবে।